কৌতুক সংগ্রহ-০৪

ব্রীজ

 

 

গ্রাম থেকে আসা এক লোক ঢাকার মহাখালী ফ্লাই ওভার দেখে তার এক বন্ধুকে বলল, আচ্ছা, সরকারের কী মাথা খারাপ হয়ে গেল ?
বন্ধুঃ কেন সরকারের মাথা খারাপ হতে যাবে ?
ভদ্রলোকঃ আমাদের কুড়ি গ্রামে অনেক খাল / নদী আছে এবং আমরা অনেক কস্ট করে ঐ সব খাল / নদী পারাপার হই, অথচ, সরকার ঐখানে ব্রীজ না করে এখানে শু্কনো রাস্তার উপর ব্রীজ দিয়ে রাখলো!

 

·Full Story

·Visit Site

·Printer Version

ইনকামট্যাক্স

 

 

তেলের দোকানে ইনকামটেক্সর লোক রেইড দিতে পারে এমন আশংকায় এক তেল ব্যবসায়ী তার কর্মচারীকে ডেকে বলল– ৩০ টিন তেল মাটির নীচে লুকিয়ে রাখতে ।

২ ঘন্টা পরে কর্মচারী এসে তেল ব্যবসায়ীকে বলল, স্যার ! ৩০ টিন তেল তো মাটির নীচে লুকিয়ে ফলেছি, এখন তেলের খালি টিনগুলো কোথায় রাখবো!!!!! 

 

·Full Story

·Visit Site

·Printer Version

লজ্জা

 

 

রাজাঃ ধরো, আমি যদি স্থান পরিবর্তন করি। তুমি বসবে আমার ওই সিংহাসনে আর আমি বসব তোমার জায়গায়।
মন্ত্রীঃ না মহারাজ, সেটা সম্ভব নয়।
রাজাঃ কেন? তোমার কি রাজা সাজতে লজ্জা হয়?
মন্ত্রীঃ না, রাজা হতে লজ্জা হবে না, কিন্তু লজ্জা পাব আপনার মতো একটা নির্বোধকে আমার মন্ত্রী হতে দেখে!

 

·Full Story

·Visit Site

·Printer Version

বুঝবে কি করে?

 

 

বোকার মতো কথা বলো না।
সেকি! তা না হলে তুমি বুঝবে কি করে?

·Full Story

·Visit Site

·Printer Version

 

নকল

 

 

স্কুল পড়ুয়া দুই বন্ধুর পরীক্ষার শেষে স্কুল মাঠে দেখা-

১ম বন্ধুঃ কী রে দোস্ত, পরীক্ষা কেমন হলো ?

২য় বন্ধুঃ পরীক্ষা ভাল হয়নি রে দোস্ত ! তবে ৫ নম্বর নিশ্চিত পাবো ।

১ম বন্ধুঃ কীভাবে ?

২য় বন্ধুঃ পরিস্কার পরিচ্ছন্নতার জন্য ছিল ৫ নম্বর ! তাই আমি পরীক্ষার খাতায় কলমের একটা আচড়ও দেইনি ! তাই ৫ নম্বর নিশ্চিত পাবো ।

১ম বন্ধু :- হায়! সর্বনাশ হয়েছে- আমি ও তো তোর মতো পরীক্ষার খাতায় কলমের একটা আচড়ও দেইনি !

আমাদের দুই জনের খাতাই একই রকম দেখলে- টিচার মনে করবে না যে আমরা দুজনে নকল করেছি!

 

·Full Story

·Visit Site

·Printer Version

পুরানো কথা

 

 

১ম বন্ধু :- জানিস্, একবার আমি আমাদের টিনের চালে উঠে আম পাড়তে গিয়ে টিনের চাল থেকে পড়ে গিয়েছিলাম,
২য় বন্ধু :- টিনের চাল থেকে পড়ে গিয়ে মরে যাস্ নি ?
১ম বন্ধু :- অনেক আগের কথা, আমার এখন মনে নাই দোস্ত!!

 

·Full Story

·Visit Site

·Printer Version

দৌড়

 

 

খুব দুই বন্ধু সুন্দর বনে বেড়াতে গেল। হঠাৎ একটা বাঘ তাদের সামনে এসে হাজির!

১ম বন্ধু বাঘের চোখে একটা ঢিল মেরে দিল একটা দৌড় এবং  ২য় বন্ধুকে বলল, দোস্ত, দৌড়ে পালা ….

২য় বন্ধুঃ আমি পালাবো কেন ? আমি কি বাঘের চোখে ঢিল মেরেছি নাকি? তুই বাঘের চোখে ঢিল মেরেছিস্ , তুই- ই দৌড়ে পালা !!

 

·Full Story

·Visit Site

·Printer Version

বাঘ শিকার!

 

 

খুব সাহসী দুই বন্ধু সুন্দর বনে গেল বাঘ শিকার করতে। অনেক খোজ-খুজি করে তারা বনের ভিতর বাঘের পায়ের ছাপ দেখতে পেল ।

এক বন্ধু অন্য বন্ধুকে বলল, তুই এই পায়ের ছাপ ধরে সামনের দিকে গিয়ে দেখ- বাঘটা কোথয় গেল, আর আমি উল্টো দিকে গিয়ে দেখি বাঘটা কোথা থেকে এল !!

 

·Full Story

·Visit Site

·Printer Version

ব্রীজ

 

 

গ্রাম থেকে আসা এক লোক ঢাকার মহাখালী ফ্লাই ওভার দেখে তার এক বন্ধুকে বলল, আচ্ছা, সরকারের কী মাথা খারাপ হয়ে গেল ?
বন্ধুঃ কেন সরকারের মাথা খারাপ হতে যাবে ?
ভদ্রলোকঃ আমাদের কুড়ি গ্রামে অনেক খাল / নদী আছে এবং আমরা অনেক কস্ট করে ঐ সব খাল / নদী পারাপার হই, অথচ, সরকার ঐখানে ব্রীজ না করে এখানে শু্কনো রাস্তার উপর ব্রীজ দিয়ে রাখলো!

·Full Story

·Visit Site

·Printer Version

সাহসী

 

 

১ম বন্ধু:- জানিস ! আমাদের ৩ ভাইয়রে মধ্যে ১ ভাই খুব সাহসী, একবার ঐ ভাই একাই একটা বাঘের সংগে লড়াই করছেলি।
২য় বন্ধু:- তারপর কি হলো?
১ম বন্ধু:-তারপর থেকে আমরা ২ ভাই !!

·Full Story

·Visit Site

·Printer Version

ট্রেন মিস

 

 

প্রথম বন্ধুঃ ট্রেন মিস করা আমার অভ্যাসে দাড়িয়েছে। বলতে পারিস কীভাবে ট্রেন মিস না করে ধরতে পারা যায়।
দ্বিতীয় বন্ধুঃ আরে খুবই সহজ। সব সময় আগের ট্রেনটা মিস করবি। তাহলে কখনো পরেরটা মিস হবে না।

 

·Full Story

·Visit Site

·Printer Version

বক্সিং রিং

 

 

১ম বন্ধুঃ বলতো রনি বক্সিং রিং এর চারপাশে দড়ি দিয়ে ঘেরা থাকে কেন?
২য় বন্ধুঃ একজন আরেকজনকে ঘুষি মেরে প্রতিশোধ নেয়ার আগে যাতে পালিয়ে যেতে না পারে সেজন্য।

 

·Full Story

·Visit Site

·Printer Version

অভাব

 

 

১ম বন্ধুঃ আচ্ছা তোকে যদি জ্ঞান আর টাকা এ দুটোর মধ্যে একটা নিতে বলি তাহলে তুই কোনটা নিবি?
২য় বন্ধুঃ আমি টাকাটাই নেব।
১ম বন্ধুঃ আমি হলে কি জ্ঞানই নিতাম।
২য় বন্ধুঃ যার যেটা অভাব সে তো সেটাই নেবে।

 

·Full Story

·Visit Site

·Printer Version

সারপ্রাইজ

 

 

এক বন্ধু, তার বান্ধবীর জন্মদিনের উপহার হিসেবে দশ হাজার টাকার একটি চেক দেবে। অন্য বন্ধু দেখল, চেকের নিচে বন্ধুর কোন স্বাক্ষর নেই!
আবুলঃ কী ব্যাপার, দশ হাজার টাকার চেক দিচ্ছিস্‌, অথচ চেকের নিচে কোন স্বাক্ষর নেই কেন?
কাবুলঃ আরে, বুঝলি নাঃ ওকে সারপ্রাইজ দেব বলে স্বাক্ষর করিনি! স্বাক্ষর করলে তো আমাকে চিনেই ফেলবে! আমি এতই বোকা?

 

খুব খারাপ

 

 

এক বন্ধুর মন খুব খারাপ। অন্য বন্ধু তাই দেখে কথা বলছেঃ
১ম বন্ধুঃ কিরে দোস্ত, মন খারাপ কেন? ওঃ তোর বউ সেই যে বাপের বাড়ি গেল, এখনও আসেনি, তাই?
২য় বন্ধুঃ নারে দোস্ত, আজকে তার ফিরে আসার কথা!

·Full Story

·Visit Site

·Printer Version

বারন

 

 

স্ত্রীঃ তোমার বন্ধু যাকে বিয়ে করতে যাচ্ছে সে মেয়েটা কঠিন দজ্জাল। তাকে বারন করো।
স্বামীঃ কেন বারন করবো? সে কি আমার সময় বারন করেছিল?

 

·Full Story

·Visit Site

·Printer Version

স্বপ্ন

 

 

তিন বন্ধু ঘুম থেকে উঠে একজন আরেকজনকে স্বপ্নের কথা বর্ননা করছে।
প্রথম বন্ধুঃ জানিস আমি স্বপ্নে দেখলাম মরুভুমির সব বালি সোনা হয়ে গেছে আর আমি সেগুলোর মালিক হয়ে গেছি।
দ্বিতীয় বন্ধুঃ আমি স্বপ্নে দেখলাম আকাশের সব তারা স্বর্নমুদ্রা হয়ে গেছে আর আমি তার মালিক হয়ে গেছি।
তৃতীয় বন্ধুঃ আমি স্বপ্নে দেখলাম এতো কিছু পেয়ে তোরা খুশিতে হার্টফেল করেছিস আর মরবার আগে আমাকে তোদের সব সম্পদ উই‌ল করে দিয়ে গেছিস।

 

·Full Story

·Visit Site

·Printer Version

আইফেল টাওয়ার

 

 

দুই চাপাবাজের মধ্যে আলাপ হচ্ছে-
প্রথম চাপাবাজ: জানিস মাঝে মাঝে ইচ্ছে হয় ফ্রান্সের আইফেল টাওয়ারটা কিনে ফেলি।
দ্বিতীয়চাপাবাজ: অত সহজ না বন্ধু! ওটা আমি বেচলেতো।

·Full Story

·Visit Site

·Printer Version

আবার দেখা হবে!

 

 

১ম বন্ধু : কিরে! এই সামান্য আঘাতেই একদম কাহিল! গত দুই সপ্তাহ ধরে একবারও ঘরের বাইরে যাচ্ছিস না যে!
২য় বন্ধু : ব্যথা সেরে গেছে ঠিকই, কিনঘরের বাইরে না যাওয়ার কারণ অন্য।
১ম বন্ধু : কারণটা কী?
২য় বন্ধু : না, মানে, যে ট্রাকটা আমাকে ধাক্কা দিয়েছিল সেটার গায়ে লেখা ছিল আবার দেখা হবে’!

 

স্মরণ শক্তি

 

 

স্কুলের  পুরস্কার বিতরণী অনুস্ঠান থেকে ফিরে ছেলে মা কে বলছে- মা, এবার আমি স্কুলে দুইটা পুরস্কার পেয়েছি-

মাঃ কি কি বাবা?

ছেলেঃ একটা পেয়েছি- স্বরণ শক্তির জন্য, আরেকটা….(মাথা চুলকাতে – চুলকাতে)এখন মনে পরছে না ..

 

·Full Story

·Visit Site

·Printer Version

চোরের মার বড় গলা

 

 

ছেলেঃ আব্বু দেখ ওই যে চোরের মা।
বাবাঃ দূর বোকা! চোরের মা কোথায়? ওটা তো একটা জিরাফ।
ছেলেঃ কেন, কালই তো তুমি পড়ালে চোরের মার বড় গলা।

 

·Full Story

·Visit Site

·Printer Version

পদাঙ্ক অনুসরন

 

 

মাঃ তোমাকে তোমার বাবার পদাঙ্ক অনুসরন করা উচিত।
ছেলেঃ বাবা, এমন কী উল্লেখযোগ্য কাজ করেছেন?
মাঃ কেন, ভদ্র ব্যাবহার করার জন্য জেল কতৃপক্ষ গত বছর তার শাস্তি ছয় মাস কমিয়ে দিয়েছিল।

 

·Full Story

·Visit Site

·Printer Version

সাইকেল চড়া

 

 

বাবাঃ পাশ করলে বলেছিলাম একটা সাইকেল কিনে দেব, তবুও তুমি পাশ করতে পারলে না। এতদিনে কি করলে তাহলে?
ছেলেঃকেন বাবা তুমি যদি সাইকেল কিনে দাও তাহলে তো আমি চালাতে পারবনা। তাই সাইকেল চড়া শিখছিলাম।

 

·Full Story

·Visit Site

·Printer Version

সম্মান

 

 

বাবাঃ রোজ এক জায়গায় গেলে সম্মান কমে যায়।
ছেলেঃ তাইতো বাবা আমি রোজ স্কুলে যাইনা।

 

·Full Story

·Visit Site

·Printer Version

প্রুফ দেখা

 

 

শিক্ষকঃ রফিক এবারো কিন্তু কাসে ফার্স্ট হওয়া চাই।
রফিকঃ দোয়া করবেন স্যার, আরেকটা কথা, প্রশ্নপত্র বাবার প্রেসেই দিচ্ছেন তো স্যার এবারো?
শিক্ষকঃ সে কি! তোমার বাবা তোমাকে প্রশ্ন পত্র দেখান নাকি?
রফিকঃ না না স্যার, তবে বাবার চোখের সমস্যার কারনে প্রুফটা দেখে দেই কিনা!

 

·Full Story

·Visit Site

·Printer Version

অংকের টিউটর

 

 

বাবাঃ আজ স্কুলের টিচার কী বললেন?
ছেলেঃ বলেন তোমার জন্য একজন ভালো অংকের টিউটর রাখতে।
বাবাঃ মানে?
ছেলেঃ মানে তুমি হোমওয়ার্কের যে অংকগুলো করে দিয়েছিলে সব ভুল ছিল।

 

·Full Story

·Visit Site

·Printer Version

নার্সারি

 

 

বাবাঃ  বাবু, পড় তো জিরো, ওয়ান, টু, থ্রি
ছেলেঃ বাবা, ওয়ান, টু, থ্রির আগে তো নার্সারিকিন্তু জিরো, জিরো করছ কেন?

কৌতুক সংগ্রহ-০৪ তে মন্তব্য বন্ধ
%d bloggers like this: