চোখের সুস্থতার জন্য

চোখের সুস্থতার জন্য


চোখের জন্য খাবারের কথা উঠলে প্রায় সবাই একবাক্যে গাজরের কথা বলেন। তবে বিশেষজ্ঞরা মনে করেন, এটিই যথেষ্ট নয়। রাতকানাসহ বেশ কিছু রোগ প্রতিরোধে ভিটামিন-এ খুবই কার্যকর। দুই ধরনের খাবারে এই ভিটামিনটি পাওয়া যেতে পারে। প্রথমত ক্যারোটিন খেলে সেটিই দেহে গিয়ে ভিটামিন উৎপাদন করে। ক্যারোটিন সাধারণত হলুদ,কমলা ও সবুজ রঙের প্রাকৃতিক খাবারে পাওয়া যায়। গাজর ও পালংশাক এ ধরনেরই উৎস। রেটিনার কার্যকারিতা অক্ষুণ্ন রাখা ও দৃষ্টিশক্তির প্রখরতার জন্য ভিটামিন-সি গ্রহণ করা উচিত। বিশেষ করে কেউ যদি ধূমপান করেন বা ডায়াবেটিস রোগীদের জন্য ভিটামিন বিশেষভাবে গ্রহণ করা উচিত। লেবুজাতীয় খাবার, মৌসুমি ফল, আলু, সবুজ শাকসবজিতে এই ভিটামিন পাওয়া যায়। ওমেগা-৩ও চোখের জন্য দরকার। এটি পাওয়া যায় ঠাণ্ডা পানির মাছ ও ভেজিটেবল তেলে।

Leave a Reply

Fill in your details below or click an icon to log in:

WordPress.com Logo

You are commenting using your WordPress.com account. Log Out / পরিবর্তন )

Twitter picture

You are commenting using your Twitter account. Log Out / পরিবর্তন )

Facebook photo

You are commenting using your Facebook account. Log Out / পরিবর্তন )

Google+ photo

You are commenting using your Google+ account. Log Out / পরিবর্তন )

Connecting to %s

%d bloggers like this: